৫৪ বছর নিভৃতপল্লীতে সেবা দিচ্ছেন বৃটিশ নাগরিক রোজ

চার যুগেরও বেশি সময় ধরে মেহেরপুরের মুজিবনগর উপজেলার বল্লভপুর হাসপাতালে নার্সিং সেবা দিচ্ছেন জুলিয়ান এম রোজ নামের এক বৃটিশ নাগরিক। এদেশের মানুষের সঙ্গে গড়ে উঠেছে আত্মার সখ্য। আজীবন কুমারী এই নার্স হাসপাতালের রোগী ও প্রশিক্ষণার্থীদের সঙ্গে মায়ার বন্ধনে আবদ্ধ। বাকি জীবন বাংলাদেশের মানুষের সেবা করে কাটিয়ে দেয়ার আশা করেন। এত বছর এদেশে বসবাস করে সাধারণ মানুষকে সেবা দিয়েও পাননি নাগরিকত্ব। ৫ বছর পর পর ভিসার মেয়াদ বাড়াতে পড়তে হয় বিভিন্ন জটিলতায়।

তাই দ্বৈত নাগরিকত্ব নেয়ার আগ্রহ রয়েছে জুলিয়ান এম রোজের।

১৯৬৪ সালে খিষ্ট্রান ধর্ম প্রচারে বাংলাদেশে আসেন। পরে পেশা বদল করে ১৯৮১ সালে নার্স হিসেবে মুজিবনগরের নিভৃত পল্লী বল্লভপুর হাসপাতালে যোগদান করেন। ১৯৮৬ সালে মায়ের সেবার করার লক্ষ্যে দেশে ফিরে গেলেও ১৯৯৬ সালে আবারো ফিরে আসেন মেহেরপুরে। চার্চ অব বাংলাদেশ পরিচালিত হাসপাতালে তখন থেকে অদ্যাবধি নার্স হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন। এখানে সেবা নিতে আসা রোগীদের সঙ্গে রোজের একপ্রকার সখ্য গড়ে উঠেছে। ২৪ ঘণ্টা সেবা দিয়ে যাচ্ছেন তিনি। এলাকার মানুষের হৃদয়ে এক অন্য রকম জায়গা করে নিয়েছেন। ব্রিটিশ সরকারের পেনশনে চলে রোজের এক সদস্য বিশিষ্ট সংসার। হাসপাতাল থেকে কোনো বেতন নেন না। অপরদিকে বিভিন্ন দাতা সংস্থা ও নিজের থেকে কিছু অর্থ দিয়ে হাসপাতালের দরিদ্র রোগীদের সেবা দেন তিনি। ভিনদেশি এই মহীয়সী নারীর মমত্বগাঁথা চিকিৎসা সেবায় অভিভূত এলাকাবাসী। জীবনের বাকি সময় এদেশের মানুষের সঙ্গেই কাটানোর আগ্রহ প্রকাশ করলেন জুলিয়ান এম রোজ। অন্য দেশের নাগরিক হয়েও এ দেশের মানুষকে পরম মমতা ও যত্নে সেবা দিয়ে মন কেড়েছেন তিনি। সবার কাছে প্রিয়মুখ এখন নিভৃতচারী রোজ। চলনে-বলনে বাঙালিয়ানা লুসির একটিই চাওয়া বাংলার মাটিতে শেষ বিদায়। বাংলা ভাষায় কথা বলতে পারায় বেশ খুশি তিনি। যতদিন বেঁচে থাকবেন ততদিন এভাবে মানুষকে সেবা দিয়ে যাবেন। এদিকে তিনি নিজ উদ্যোগে গড়ে তোলেন একটি বৃদ্ধাশ্রম।

Check Also

এরফান গ্রুপ (রাইস ইউনিট) এর বার্ষিক ডিলার সম্মেলন -২০১৮ অনুষ্ঠিত

বাংলাদেশের শীর্ষস্থানীয় চাল প্রক্রিয়াজাত, খাদ্যপণ্য উৎপাদন ও বাজারজাতকারী প্রতিষ্ঠান এরফান গ্রুপ (রাইস ইউনিট) এর বার্ষিক …

Powered by themekiller.com